আইএফ‌আইসি ব্যাংক আমার একাউন্ট: অ্যাকাউন্টের সুবিধা, অসুবিধা এবং অ্যাকাউন্ট খোলার নিয়ম ও প্রয়োজনীয় কাগজপত্র

আইএফ‌আইসি আমার একাউন্ট হলো (IFIC Amar Account) হলো বাংলাদেশে প্রথম গ্রাহকবান্ধব ওয়ান স্টপ অ্যাকাউন্ট, যাতে এক অ্যাকাউন্টেই অনেক সুবিধা একীভূত করা হয়েছে।

আইএফ‌আইসি ব্যাংক লিমিটেড (IFIC Bank Limited) বাংলাদেশের অন্যতম সেরা একটি বাণিজ্যিক ব্যাংক। এই আইএফ‌আইসি ব্যাংক সর্বদা এর গ্রাহক চাহিদা মেটাতে কাজ করে যাচ্ছে নিরলস ভাবে। ব্যাংকটি চেষ্টা করে যাচ্ছে যে, আরও কীভাবে গ্রাহকদের সুবিধা প্রদান করা যায় কিংবা উত্তম সেবা প্রদান করে প্রতিদিন যাতে নতুন গ্রাহক সংগ্রহ করা যায়। আইএফ‌আইসি ব্যাংকের এমনই এক চেষ্টার রূপ হলো— ‘আইএফ‌আইসি ব্যাংক আমার একাউন্ট’ (IFIC Amar Account)। এখানে আইএফ‌আইসি আমার অ্যাকাউন্ট নিয়ে কিছু তথ্য তুলে ধরা হলো।

আইএফ‌আইসি আমার একাউন্টের সুবিধা কী

আইএফ‌আইসি আমার একাউন্ট (IFIC Amar Account) হলো বাংলাদেশে প্রথম গ্রাহকবান্ধব ওয়ান স্টপ অ্যাকাউন্ট, যাতে এক অ্যাকাউন্টেই অনেক সুবিধা একীভূত করা হয়েছে।

আইএফ‌আইসি আমার একাউন্ট বাংলাদেশের ব্যাংকিং ইতিহাসে এক অসাধারণ একাউন্ট।

আইএফ‌আইসি আমার একাউন্টের সুবিধা নিচে উল্লেখ করা হলো—

  • এক একাউন্টেই সঞ্চয় ও ঋণ (ওভারড্রাফট) সুবিধা। অর্থাৎ, ‘আমার একাউন্ট’ খুললে একই অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে সেভিংস করা যাবে এবং ঋণ গ্রহণ করা যাবে। ঋণ নেওয়ার জন্য আলাদা অ্যাকাউন্ট খোলার প্রয়োজন নেই। এই একাউন্টে কারেন্ট অ্যাকাউন্টের (Current Account) সুবিধাও ভোগ করা যাবে।
  • স্লাব-ভিত্তিক আকর্ষণীয় মুনাফা হার- যত সঞ্চয়, তত আয়।
  • দৈনিক হিসেবে সুদ গণনা করা হয় এবং মাসিক প্রদান করা হয়।
  • একই কার্ড ডেবিট এবং ক্রেডিট কার্ডের সুবিধা।
  • ডেবিট কার্ড-ক্রেডিট কার্ডের বাৎসরিক চার্জ মাত্র ৫৭৫ টাকা।
  • যে-কোনো এটিএম বুথ থেকে নগদ টাকা উত্তোলনে কোনো ফি প্রদান করতে হয় না।
  • এক চেক বই দিয়ে সঞ্চয় এবং ওভারড্রাফটের টাকা তোলা যায়।
  • ক্রেডিট কার্ডের উত্তম বিকল্প কারণ, যেকোনো ক্রেডিট কার্ডের চেয়ে কম সুদে ঋণ পাওয়া যায়।
  • আইএফ‌আইসি আমার একাউন্টের সুদের হার কম যা প্রচলিত ক্রেডিট কার্ডের প্রায় এক তৃতীয়াংশ।
  • কোনো লুকানো চার্জ নেই।

আইএফ‌আইসি আমার একাউন্টের অসুবিধা

‘আইএফ‌আইসি আমার একাউন্ট’ নামের এই অ্যাকাউন্ট খুলতে হলে গ্রাহককে সর্বনিম্ন ৫০০০ টাকা ব্যাংকে ডিপোজিট করতে হয়। তবে এই ৫০০০ টাকার বিপরিতে কোনো প্রকার লাভ বা মুনাফা পাওয়া যাবে না।

‘আইএফ‌আইসি আমার একাউন্ট’ খোলার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র

কেবল সঞ্চয়ের জন্য

  • আবেদনকারীর ৩ কপি ছবি
  • নমিনির ১ কপি ছবি
  • আবেদনকারীর জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি
  • সংস্থার কাছ থেকে পরিচিতিপত্র (কেবল পেরোল গ্রাহকদের জন্য)

ওভারড্রাফট সুবিধার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র

  • আবেদনকারীর ১ কপি ছবি
  • টিআইএন (Tax Identification Number — TIN)-এর ফটোকপি
  • ব্যাংক স্টেটমেন্ট (বেতনভোগী এবং স্ব-কর্মজীবী ​​ব্যক্তিদের জন্য ৬ মাস এবং ব্যবসায়ীদের জন্য ১২ মাস)
  • আইএফআইসি পে-রোল ব্যতীত অন্য সকল বেতনভোগী গ্রাহকের জন্য স্যালারি সার্টিফিকেট/ প্রতিষ্ঠানের পরিচয়পত্র
  • ব্যবসার লাইসেন্সের ফটোকপি (কেবল ব্যবসায়ী শ্রেণির জন্য)

যোগাযোগ

আরও বিস্তারিত জানার জন্য বা আইএফ‌আইসি আমার একাউন্ট খুলতে https://digitalaof.ificbankbd.com/ লিংকে প্রবেশ করুন অথবা আইএফআইসি ব্যাংকের নিকটস্থ শাখায় যোগাযোগ করুন।

আইএফআইসি টাওয়ার, ৬১ পুরানা পল্টন

ফোন: ০৯৬৬৬৭১৬২৫০

ফ্যাক্স: ৮৮০-২-৯৫৫৪১০২

info@ificbankbd.com

মনির হোসেন
কন্ট্রিবিউটর, বিশ্লেষণ
এ বিষয়ের আরও নিবন্ধ

বাংলাদেশের প্রথম ডিজিটাল লোন অ্যাপ ব্র্যাক ব্যাংকের ‘সুবিধা’

বাংলাদেশের প্রথম ব্যাংক হিসেবে ব্র্যাক ব্যাংক ‘সুবিধা’ নামে দেশের প্রথম এন্ড-টু-এন্ড ডিজিটাল লোন অ্যাপ চালু করেছে। 'সুবিধা' নামের ব্র‍্যাক ব্যাংকের এই লোন...

ডিজিটাল লোন: ডিজিটাল লোন অ্যাপ কী এবং এর সুবিধা ও অসুবিধা

কার অর্থের প্রয়োজন নেই? মাঝেমধ্যেই আমাদের জীবনে এমন কিছু ঘটনা ঘটে যার কারণে প্রায়শই বিভিন্ন খাতে খরচ করতে হয়। সব সময় যে...

জনতা ব্যাংক: জনতাকেয়ার-স্বাস্থ্যসেবা ঋণ সংক্রান্ত প্রয়োজনীয় তথ্য

জনতা ব্যাংকের জনতাকেয়ার-স্বাস্থ্যসেবা ঋণ সংক্রান্ত তথ্য ঋণ প্রাপ্তির যোগ্যতা (Eligibility)ঋণের গ্রাহককে বিভিন্ন সরকারি, আধাসরকারি, স্বায়ত্বশাসিত সংস্থা, ব্যাংক, আর্থিক...

Banking: বাংলাদেশে কি টাকার তুলনায় ব্যাংকের সংখ্যা বেশি?

ব্যাংকিং খাতকে অর্থনীতির চালিকাশক্তি বলা হয়। ব্যাংকের অন্যতম কাজ হলো দেশের অর্থনীতি ও ব্যবসার চাকা সচল রাখতে ঋণ দেয়া এবং সময়মতো সে...
আরও পড়তে পারেন

টপ্পা গান কী, টপ্পা গানের উৎপত্তি, বাংলায় টপ্পা গান ও এর বিশেষত্ব

টপ্পা গান এক ধরনের লোকিক গান বা লোকগীতি যা ভারত ও বাংলাদেশের বাংলা ভাষাভাষী মানুষের কাছে খুবই প্রিয়। এই টপ্পা গান বলতে...

রাষ্ট্রবিজ্ঞান বলতে কী বোঝায় এবং ভারতীয় উপমহাদেশে রাজনীতি বা রাষ্ট্রচিন্তা

রাষ্ট্রবিজ্ঞান (Political Science) সমাজবিজ্ঞানের একটি শাখাবিশেষ যেখানে পরিচালন প্রক্রিয়া, রাষ্ট্র, সরকার এবং রাজনীতি সম্পর্কীয় বিষয়াবলী নিয়ে আলোকপাত করা হয়।  এরিস্টটল রাষ্ট্রবিজ্ঞানকে রাষ্ট্র...

গণতন্ত্রের সংজ্ঞা কী বা গণতন্ত্র বলতে কী বোঝায়

গণতন্ত্র বলতে কোনো জাতিরাষ্ট্রের অথবা কোনো সংগঠনের এমন একটি শাসনব্যবস্থাকে বা পরিচালনাব্যবস্থাকে বোঝায় যেখানে নীতিনির্ধারণ বা সরকারি প্রতিনিধি নির্বাচনের ক্ষেত্রে প্রত্যেক নাগরিক...

সমাজতন্ত্র কী? সমাজতন্ত্রের উৎপত্তি, ইতিহাস, বৈশিষ্ট্য, সুবিধা, অসুবিধা ও অর্থনীতি

সোভিয়েত ইউনিয়নে সমাজতান্ত্রিক রাষ্ট্র কায়েম করা হয়েছিল ১৯১৭ সালে। সমাজতন্ত্রে বৈরি শ্রেণি নেই, কেননা কলকারখানা, ভূমি, সবই সমাজতান্ত্রিক রাষ্ট্রের সম্পত্তি। সমাজতন্ত্রে শ্রেণি...

জীবনী: সৈয়দ ইসমাইল হোসেন সিরাজী

সৈয়দ ইসমাইল হোসেন সিরাজী ছিলেন একজন বাঙালি লেখক ও কবি। তিনি উনিশ ও বিশ শতকে বাঙালি মুসলিম পুনর্জাগরণের প্রবক্তাদের একজন। সিরাজী মুসলিমদের...

5 COMMENTS

  1. আমি কি আমার একাউন্টে এক সপ্তাহের জন্য 5 লক্ষ টাকা রাখলে কি আমি কোন মুনাফা পাব দৈনিক হারে। এক সপ্তাহ পর আমি টাকাটা তুলে ফেলবো

  2. আমি একটি আমার অ্যাকাউন্ট খুলছি অ্যাকাউন্ট খোলার সময় আমি 5000 টাকা ডিপোজিট দিয়েছি যদি আমার একাউন্টে সবসময়ের জন্য পাঁচ লাখ টাকা থাকে বা 200000 টাকা থাকে সে ক্ষেত্রে মুনাফা ভোগ করতে পারবো উদাহরণস্বরূপ আমি বলতে পারি যে আমার বাড়িতে 5 লক্ষ টাকা আছে আমি 1 সপ্তাহের জন্য আমার একাউন্টে রাখলাম সে ক্ষেত্রে আমি দৈনিক হারে মুনাফা উপভোগ করতে পারব

  3. IFIC Bank account open করে বাসায় আসতে পারি নাই ডিবেট কার্ডের জন্য ৫০০ টাকা কেটে নিয়ে গেছে কিন্তু কার্ড হাতে পাইনি। যাই হোক পরে আর আগে নেওয়া সমানই কিন্তু চেক বইয়ের জন্য ১৪০ টাকা এডভান্স নিয়েছে সেটা খুব কষ্ট দায়ক মনে হলো
    একটা একাউন্ট মানে হাজার টাকার লেনদেন, সাথে সাথে নেওয়ার মানে হয় না।

  4. ফালতু ব্যাংক এটা। একাউন্ট খোলার পর চেক বই এবং কার্ড নেওয়া বাধ্যতামূলক। আমি চেক বা কার্ড যে কোন একটা নিবো এটা আমার ইচ্ছা। কিন্তু কার্ড আর চেক বাধ্যতামূলক নিতেই হবে এটা নাকি সিষ্টেম। অন্য যে কোন ব্যাংকে একাউন্ট খুললে প্রথমে চেক দিবে তার পর যদি আপনার কার্ডের দরকার হয়ে তখন রিকোজিশন দেওয়ার পর কার্ড ইস্যু করে। যখন আপনার কার্ড একটিব হবে তখন কার্ডের চার্জ কাটা হয়। কিন্তুু এখানে সব অগ্রীম কেটে নেয়। আমি একাউন্ট খোলার পর ৫০০০ টাকা ডিপোজিট করেছি। একাউন্ট খুলে বাসায় আসতে আসতেই একাউন্ট থেকে প্রথমে ১৪০ টাকা এবং ৫৭৫ টাকা কেটে নিয়েছে। আমি কাষ্টমার কেয়ারে ফোন দিলাম তারা বললো চেক আরও কার্ডের জন্য টাকা কেটে নেওয়া হয়েছে। আরে ভাই আমি তো চেক আরও কার্ড হাতেই পেলাম না। অগ্রীম টাকা কাটার কোন মানে হলো?? তারপর আবার বছরে ২ বার নাকি একাউন্ট মেইনটেইন খরচ ৩৫০ টাকা করে ৭০০ টাকা কেটে নিবে। তাহলে কি দরকার একাউন্ট খোলার। তারচেয়ে টাকা বাসায় রাখা অনেক ভালো।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here